১৭ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২রা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার, রাত ১২:৫৫
বিজ্ঞাপনের জন্য ই-মেইল করুনঃ ads@primenarayanganj.com

এসপি জায়েদুলকে নগরবাসীর শুভেচ্ছা

প্রাইমনারায়ণগঞ্জ.কম

মো: সাইফুল ইসলাম সায়েম:

নারায়ণগঞ্জ পুলিশের প্রধান মোহাম্মদ জায়েদুল আলম। ২০১৯ সালের ১৯ ডিসেম্বর পুলিশ সুপার হিসাবে এ জেলায় যোগদান করেন। যোগদানের পর থেকে এখনো পর্যন্ত তিনি তার কর্মগুণে মহিয়ান হয়ে আছেন বলে মনে করে সমাজের বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ। বিশেষ করে নারায়ণগঞ্জবাসীর দীর্ঘদিনের সমস্যা নগরীর ফুটপাত দখলমুক্ত করার যে পদক্ষেপ সম্প্রতি তিনি হাতে নিয়েছেন তা সর্বমহলে প্রসংশিত হচ্ছে।

জানা যায়, এসপি হারুন ছিলেন নারায়ণগঞ্জের মানুষের কাছে অন্যতম সেরা এসপি। অপরাধীদের ক্রমান্বয়ে গ্রেফতার ও যে কোনো ইস্যুতে পারফেক্ট ফিনিশিং এবং সাধারণ মানুষের কষ্ট লাঘবে হকার থেকে শুরু করে যে কোনো কর্মকান্ডে তার অতুলনীয় ভুমিকার কারণে জনসাধারণ তাকে সিংহাম সহ নানা উপাধি দিতে থাকেন। তার বিদায়ের পর প্রায় দেড় মাস কোনো এসপি না থাকায়, আবারো অপরাধীদের উৎপাত বাড়তে পারে এমন শঙ্কায় আতংকিত হয়ে পড়ে নারায়ণগঞ্জের মানুষ এমনটাই দাবী বিশ্লেষক মহলের।

তবে, নারায়ণগঞ্জবাসীর সেই ভয় ও শঙ্কাকে দুর করতে নারায়ণগঞ্জে এসে যোগদান করেন মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্য, ২২তম বিসিএসের ক্যাডার মোহাম্মদ জায়েদুল আলম। তিনি যোগদানের পর প্রথমে মুক্তিযোদ্ধা ও পরে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় সভা করেন। এছাড়া তিনি আরো বেশ কয়েকটি ব্যবসায়ীক, সামাজিক সংগঠনের সাথেও আলোচনা সভা করেন।

নারায়ণগঞ্জবাসীর মতে, এরপর থেকেই শুরু হতে থাকে এসপি জায়েদুলের ক্যারিশম্যাটিক কার্যক্রমের। তিনি যোগদানের পর থেকেই বিভিন্ন থানা থেকে বিতর্কিত পুলিশ সদস্যদের অন্যত্র বদলী ও পুলিশ লাইন্সে সংযুক্ত করতে থাকেন। যদিও পুলিশ প্রশাসনের দাবী, কোনো বিতর্কিত কর্মকান্ডের জন্য নয় বরং পুলিশে চাকরীর অংশ হিসাবেই বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন পুলিশ সদস্যকে বদলী করা হয়।

সমাজের বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষের সাথে কথা বলে জানা যায়, পুলিশ সুপার জায়েদুল আলমের যোগদানের পর তার বিভিন্ন সফলতার কারণে নারায়ণগঞ্জের সাধারণ মানুষের কাছে পুলিশের ভাবমূর্তি আগের চেয়ে বহুগুন বেড়েছে। সর্বশেষ নারায়ণগঞ্জের অন্যতম প্রধান “হকার ও ফুটপাত দখল” সমস্যা সমাধানে পুলিশ সুপারের বিভিন্ন উদ্যোগ সর্বমহলে বেশ প্রশংসিত হচ্ছে বলেও জানা যায়। এ হকার সমস্যা সমাধানে এসপি জায়েদুল আলমের নির্দেশে ইতিমধ্যে নগরীর প্রধান প্রধান ফুটপাত থেকে হকারদের উচ্ছেদে প্রায় সময়ই উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করছে সদর থানা ও ডিবি পুলিশ। সর্বশেষ চাষাড়া শহীদ মিনারের আশেপাশের ফুটপাত দখলমুক্ত করতে তিন দিন আগেই থানা ও ডিবি পুলিশ অভিযান পরিচালনা করে। এছাড়াও বঙ্গবন্ধু সড়কে প্রায় প্রতিদিনই অভিযান চালায় থানা পুলিশ।

এতে নগরবাসীর দীর্ঘদিনের ভোগান্তি লাঘব হয়েছে দাবী করে নগরীর একজন বাসিন্দা প্রাইম নারায়ণগঞ্জকে ফোন করে জানান, আগে নগরীর ২নং রেল গেট থেকে চাষাড়া আসতে সময় লাগতো ২০-২৫ মিনিট। কিন্তু বর্তমানে এসপি স্যারের কারণে নগরীর ফুটপাত দখল মুক্ত করা সম্ভব হওয়ায় এবং যানজট সমস্যার সমাধান হওয়ায় মাত্র ৪ থেকে ৫মিনিটেই চাষাড়া আসা যায়। এজন্য এসপি স্যারকে শুভেচ্ছা। তিনি আরো বলেন, আমি সরাসরি হয়তো স্যারকে কোনোদিন ফুল দিতে পারবো না। তবে আপনাদের অনলাইন নিউজ পোর্টালের মাধ্যমে স্যারকে ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা জানাতে চাই, নগরবাসীর এ দীর্ঘদিনের সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে কাজ করার জন্য।

আজকের দিন-তারিখ

  • মঙ্গলবার (রাত ১২:৫৫)
  • ২রা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
  • ১৮ই রজব, ১৪৪২ হিজরি
  • ১৭ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ (বসন্তকাল)

বাছাইকৃত সংবাদ

No posts found.