১৭ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২রা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার, রাত ১:৩৭
বিজ্ঞাপনের জন্য ই-মেইল করুনঃ ads@primenarayanganj.com

গতি ফিরেছে আ:লীগে, ধীরে চলছে বিএনপি

প্রাইমনারায়ণগঞ্জ.কম

দীর্ঘদিন কার্যক্রম স্থগিত থাকার পর বর্তমানে স্বাস্থ্যবিধি মেনে দলীয় সকল কর্মসূচী পালন করছে রাজনৈতিক দলগুলো। এরপর থেকে রাজনীতির মাঠে আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা উজ্জীবিত হয়ে দলীয় কর্মকান্ড পরিচালনা করছে। অপরদিকে মূল দলের জেলা কমিটি বিলুপ্ত করা এবং মহানগর কমিটি শীঘ্রই বিলুপ্ত করা হবে এমন ঘোষণার কারণে বিএনপির রাজনীতি অনেকটা ধীর গতিতে এগোচ্ছে বলে মনে করে রাজনৈতিক বিশ্লেষক মহল।

জানা যায়, দীর্ঘ সাত মাস পর জেলার প্রতিটি থানা, উপজেলা, পাড়া-মহল্লায় আবারো উজ্জীবিত হয়েছে নারায়ণগঞ্জ আওয়ামীলীগ ও অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা। পুরোদমে চলছে দলীয় বিভিন্ন কার্যক্রম। অপরদিকে সুযোগ থাকলেও জেলা বিএনপির কোনো অভিভাবক না থাকায় এবং মহানগর বিএনপি বিভক্ত হওয়ায় নেতাকর্মীরাও দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে পড়েছে। ফলে রাজনীতির মাঠে তেমন কোনো জোরালো ভুমিকা রাখতে পারছেনা বিএনপি। তবে শীঘ্রই জেলা বিএনপির কমিটি গঠন হবে এমন আশা ও অপেক্ষায় রয়েছে নেতাকর্মীরা।

সুত্রে জানা যায়, করোনার কারণে ২৬ মার্চ থেকে লকডাউন শুরুর পর মাঠের রাজনীতি বন্ধ হয়ে যাওয়ায় অসহায় ও হতদরিদ্রদের পাশে দাড়ানোর চেষ্টা করে আওয়ামীলীগ ও বিএনপির নেতাকর্মীরা। পরবর্তীতে ১লা জুন থেকে লকডাউন শিথিল করা হলেও মাঠের রাজনীতিতে তেমন একটা সরব হতে পারে নি রাজনৈতিক দলগুলো।

এদিকে করোনার ভয়কে জয় করে ধীরে ধীরে জনজীবনে ব্যস্ততা বাড়তে থাকে, কমতে থাকে করোনা ভীতি। ফলে জেলার প্রতিটি পাড়া-মহল্লায় আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগসহ সকল সহযোগী ও অঙ্গ-সংগঠনের নেতাকর্মীদের পক্ষ থেকে বিভিন্ন দিবসকে কেন্দ্র করে মিলাদ, দোয়া ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হচ্ছে। এসব সভা, মিলাদ ও দোয়া অনুষ্ঠানগুলোতে সকল স্তরের নেতাকর্মীরা স্বত:স্ফুর্তভাবে অংশ নেয়ার ফলে মাঠের রাজনীতিতে আবারো চাঙ্গা হয়েছে আওয়ামীলীগের রাজনীতি এমনটাই মনে করেন রাজনৈতিক বিশ্লেষক মহল।

আওয়ামীলীগের তৃণমুলের নেতাকর্মীদের মতে, বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠানের পর থেকেই লকডাউনের কারণে বন্ধ হয়ে যায় মাঠের রাজনীতি। এরপর থেকেই রাজনীতিতে ধীরে ধীরে নিস্ক্রীয় হতে থাকে নেতাকর্মীরা, অনেকটা অলস সময় পাড় করতে থাকে তারা। দীর্ঘ ৫ মাস পর বঙ্গবন্ধুর মৃত্যুবার্ষিকী থেকে শুরু হয়ে আবারো বিভিন্ন আলোচনা সভা, মিলাদ ও দোয়া মাহফিলে অংশ নিয়ে নেতাকর্মীরা পুনরায় উজ্জীবিত হয়ে উঠেছে।

অপরদিকে বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী চলতি বছরের ২১শে ফেব্রুয়ারী জেলা বিএনপির কমিটি বিলুপ্ত করা হয়। পাশাপাশি বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ঘোষণা দেন শীঘ্রই বিলুপ্ত করা হবে মহানগর বিএনপির কমিটি। যার ফলে নেতাকর্মীরা অনেকটা অভিভাবকহীন হয়ে পড়েছে। এ কারণে মাঠের রাজনীতিতে জোরালোভাবে ফিরে আসতে পারছে না বিএনপি ও অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনগুলো। ফলে হতাশা ও অভিভাবকের অপেক্ষায় দিন কাটাতে হচ্ছে জেলার নেতাকর্মীদের।

বিএনপির তৃণমূল নেতাকর্মীরা মনে করে, এমনিতেই দীর্ঘ প্রায় এক যুগ ধরে দল ক্ষমতার বাইরে তারপর আবার আট মাসেরও বেশী সময় ধরে জেলা বিএনপির কমিটি না থাকায় দলে কিছুটা হতাশার সৃষ্টি হয়েছে। সরকারী দলের নানা কুট-কৌশল, রাজনৈতিক মারপ্যাচে ও পুলিশ বাহিনীর বিভিন্ন হামলা-মামলার কারণে নেতাকর্মীরা ছন্নছাড়া হয়ে পড়েছে। যদি শীঘ্রই জেলা বিএনপির কমিটি গঠন করা না হয় তবে সাংগঠনিকভাবে আরো বেশী দুর্বল হয়ে পড়বে দল ও দলের নেতাকর্মীরা এমনটাই মনে করেন তারা।

আজকের দিন-তারিখ

  • মঙ্গলবার (রাত ১:৩৭)
  • ২রা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
  • ১৮ই রজব, ১৪৪২ হিজরি
  • ১৭ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ (বসন্তকাল)

বাছাইকৃত সংবাদ

No posts found.